,


শিরোনাম:
«» কক্সবাজার টেকনাফের এডভোকেট আব্দুর রহমান ইয়াবাসহ তুরাগে পুলিশের জালে ধরা। «» জিএম কাদেরের ফোন ছিনতাই করে ২৩ হাজার টাকা বিক্রি, বসুন্ধরা মার্কেট থেকে ৮ দিন পর খোলা ফোন উদ্ধার। «» শেরে-বাংলা নগরে প্রশাসনকে মাসোহারা দিয়েই চলছে সরকারি দপ্তরের গাড়ির তেল চুরি «» উত্তরায় কিশোর গ্যাংয়ের ছিনতাইয়ের কবলে পথচারীরা। «» আব্দুল্লাহপুরের তালাবদ্ধ গরুর সিকল কেটে থানায় এনে চাঁদা আদায় ক্ষুব্দ গরুর মালিক  «» ‘পড়ি বঙ্গবন্ধুর বই, সোনার মানুষ হই ‘-শীর্ষক সেরা পাঠকদের পুরষ্কার বিতরণী «» মহানন্দা নদীতে যূবকের রহস্যজনক মৃত্যু হস্তক্ষেপ নেই দায়িত্বশীলদের «» জেলা পুলিশ চাঁপাইনবাবগঞ্জ’র মাস্টার প্যারেড সম্পন্ন «» দখিনের দুয়ার উম্মোচনে ফরিদগঞ্জে আনন্দ র‍্যালী «» আব্দুল্লাহপুরে এনা পরিবহনের বাস চাপায় মৃত্যু পথযাত্রী নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাআ’দ।

বর্ষিয়ান নেতা আখম জাহাঙ্গীর হোসাইন এর দাফন সম্পন্ন

মোঃমাজহারুল ইসলাম মলি: বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য , পটুয়াখালী-৩ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও সাবেক বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী আখম জাহাঙ্গীর হোসাইন রাজনীতিবিদ, সাধারণ মানুষ ও বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক কর্মীদের ফুলেল শ্রদ্ধা আর অশ্রুতে সিক্ত হয়ে বিদায় নিলেন। বর্ষিয়ান এ রাজনীতিবিদ চিরঘুমে শায়িত হলেন জন্মস্থান গলাচিপার গজালিয়া ইউনিয়নের ইছাদী গ্রামের পারিবারিক গোরস্থানে। গ্রামের বাড়ি চতুর্থ জানাজা শেষে তাঁর বাবা মো. ইদ্রিস ঢালী ও মা মালেকা বেগমের পাশে শায়িত হয়েছেন। শুক্রবার সকালে ঢাকার মিরপুরে প্রথম জানাজা শেষে বেলা ১১টার দিকে বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর একটি হেলিকপ্টারে আখম জাহাঙ্গীরের মরদেহ আনা হয় দশমিনা উপজেলার বীজবর্ধন খামারের মাঠে। সেখানে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও স্থানীয় প্রশাসনের ব্যবস্থাপনায় শ্রদ্ধা নিবেদন করেন পটুয়াখালী-৩ আসনের সংসদ সদস্য এসএম শাহজাদাসহ দশমিনা উপজেলা প্রশাসন, দলীয় ও সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন। এর পর আখম জাহাঙ্গীরের মরদেহ নিয়ে আসা হয় জন্মভূমি গলাচিপায়। গলাচিপা স্থানীয় আওয়ামী লীগ অফিসে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন দলীয় নেতা-কর্মীরা। পরে উপজেলা প্রশাসন, বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে স্থানীয় হাইস্কুল ফুটবাল খেলার মাঠে তৃতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন, গলাচিপা উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে শ্রদ্ধা জানাতে আসেন জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. গোলাম সরোয়ার, বরগুনা জেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম সরোয়ার টুকুর ফুলেল শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়, পটুয়াখালী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. খলিলুর রহমান মোহন মিয়া, গলাচিপা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সাহিন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সন্তোষ কুমার দে, সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফা টিটো, গলাচিপা প্রেসক্লাবের সভাপতি খালিদ হোসেন মিলটনসহ যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ। এ ছাড়াও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থী উপস্থিত হয়ে শেষ শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। এর পর গলাচিপা থেকে চিরঘুমে শায়িত করার জন্য খম জাহাঙ্গীরকে নিয়ে যাওয়া হয় তার গ্রামের বাড়ির পারিবারিক কবরস্থানে। শ্রদ্ধা জানাতে এসে পটুয়াখালী-৩ আসনের সংসদস সদস্য এসম এম শাহজাদা বলেন, খম জাহাঙ্গীরের শূণ্যতা পূরণ হওয়ার মতো নয়। তিনি আমার এবং এ এলাকার অভিভাবক ছিলেন। এলাকার সীমানাা পেরিয়ে কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের নেতৃত্ব দিয়েছিলেন। তার পরেও আমি চেষ্টা করবো খম জাহাঙ্গীর গলাচিপা-দশমিনায় উন্নয়নের যে বীজ বপণ করেছিলেন সেই ধ্যান ধারণার তাঁর আদর্শ মতো আমরা এগিয়ে নিয়ে যাবো। তিনি আরো বলেন, রাজনৈতিকভাবে সহায়তা করার জন্য পরিবারের সকলের প্রতি অনুরোধ জানানো হয়।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ