,


শিরোনাম:
«» কক্সবাজার টেকনাফের এডভোকেট আব্দুর রহমান ইয়াবাসহ তুরাগে পুলিশের জালে ধরা। «» জিএম কাদেরের ফোন ছিনতাই করে ২৩ হাজার টাকা বিক্রি, বসুন্ধরা মার্কেট থেকে ৮ দিন পর খোলা ফোন উদ্ধার। «» শেরে-বাংলা নগরে প্রশাসনকে মাসোহারা দিয়েই চলছে সরকারি দপ্তরের গাড়ির তেল চুরি «» উত্তরায় কিশোর গ্যাংয়ের ছিনতাইয়ের কবলে পথচারীরা। «» আব্দুল্লাহপুরের তালাবদ্ধ গরুর সিকল কেটে থানায় এনে চাঁদা আদায় ক্ষুব্দ গরুর মালিক  «» ‘পড়ি বঙ্গবন্ধুর বই, সোনার মানুষ হই ‘-শীর্ষক সেরা পাঠকদের পুরষ্কার বিতরণী «» মহানন্দা নদীতে যূবকের রহস্যজনক মৃত্যু হস্তক্ষেপ নেই দায়িত্বশীলদের «» জেলা পুলিশ চাঁপাইনবাবগঞ্জ’র মাস্টার প্যারেড সম্পন্ন «» দখিনের দুয়ার উম্মোচনে ফরিদগঞ্জে আনন্দ র‍্যালী «» আব্দুল্লাহপুরে এনা পরিবহনের বাস চাপায় মৃত্যু পথযাত্রী নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাআ’দ।

টেকনাফে শালবাগান বেপরোয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অপহৃত যুবক উদ্ধার,আসামিরা আটক

 নুরুল আলম, টেকনাফঃ দক্ষিণ কক্সবাজার টেকনাফের শালবাগান রোহিঙ্গা ক্যাম্পে এক অপহৃত যুবককে উদ্ধার করেছে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন)। এই ঘটনায় অপহরণকারী চক্রের তিন জন সদস্যকে আটক করেছে আইন শৃংখলা বাহিনী ৩০ আগষ্ট (সোমবার) ভোররাত ২টারদিকে টেকনাফের ২৬ নং শালবাগান অনুপ্রবেশ কারী রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর ক্যাম্পে দায়িত্বরত ১৬ এপিবিএন সদস্যরা গোপনীয় সংবাদ ভিত্তিতে জানিয়ে পাহাড়ি ছড়ার পাশে অভিযান চালিয়ে স্বশস্ত্র দূবৃর্ত্তদের হাতে অপহরণের শিকার ব্যাক্তিকে উদ্ধার ও অপহরনকারিদের আটক করতে সক্ষম হয়েছে ও উদ্ধার হওয়া ভিকটিম হচ্ছে শালবাগান রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ব্লক-ই/৫ এর বাসিন্দা মিয়ানমার নাগরীক আবুল কালামের পুত্র নাজিম উদ্দিন (২০) এবং অপহরণকারী চক্রের সদস্যরা হচ্ছে ব্লক-এ/৪ এর বাসিন্দা মিয়ারমার নাগরীক মৃত্যু দুদু মিয়ার পুত্র আবুল কাশেম (৩২), ব্লক-ডি/২ এর ঐ বেপরোয়া রোহিঙ্গা বাসিন্দা ছিদ্দিকের পুত্র নুর কামাল (২৫) এবং ব্লক-ই/৮এর বাসিন্দা মৃত্যু দিল মোহাম্মদের পুত্র মোহাম্মদ কাউসার ওরফে হাফেজ ইউনুস (৩১)। ধৃতরা পূর্বেও ওই ক্যাম্প এবং অন্যান্য ক্যাম্পের অনেক অপহরণ ও ডাকাতির ইয়াবা ব্যবসায়ী সাথে জড়িত ছিল। এছাড়াও আটককৃত আসামীদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন ক্যাম্পের মাদক ব্যবসাসহ ক্যাম্প এলাকার আইন শৃঙ্খলা পরিপন্থী অনেক অপকর্মের সাথে জড়িত থাকায় তাদের বিরুদ্ধে টেকনাফ ও উখিয়া থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। উল্লেখ্য, গত ২৯ আগষ্ট বিকাল সাড়ে ৩টারদিকে শালবাগান ক্যাম্পের ব্লক-ই/৪ হতে সন্ত্রাসী গ্রুপের ৮/৯জন সশস্ত্র সন্ত্রাসী উদ্ধারকৃত ভিকটিমকে অপহরন করে নিয়ে যায়। পরে ১৬এপিবিএন সদস্যরা অভিযান চালিয়ে ভিকটিম নাজিম উদ্দিনকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। ১৬এপিবিএন অধিনায়ক এসপি মোহাম্মদ তারিকুল ইসলাম তারিক উক্ত সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এই ব্যাপারে ভিকটিমের পিতা বাদী হয়ে টেকনাফ মডেল থানায় মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন রয়েছে এবং পলাতক অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ