,


শিরোনাম:
«» ক্ষতিগ্রস্ত ৩৩ দোকান মালিকরা পেলেন প্রধানমন্ত্রীর অনুদান «» যৌতুক না পেয়ে নির্যাতনের অভিযোগ, গৃহবধূকে মারধর «» তুরাগে ১৫০টি দোকানের বিদ্যুৎ বিল মাসে ৭০০ টাকা দেখিয়ে প্রায় ৫ লক্ষ টাকা আত্মসাৎকারী নামধারী নেতা গ্রেফতার। «» তুরাগে আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের নতুন সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রম শুরু «» তুরাগে ২ বছরের শিশু ধর্ষণ : ধর্ষক মামুন আটক। «» ইদ-ই-মিলাদুন্নবি উপলক্ষে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের নিয়ে দোয়া ও আলোচনা সভার আয়োজন করেছে স্বপ্নালোড়ন বাংলাদেশ «» কক্সবাজার টেকনাফের এডভোকেট আব্দুর রহমান ইয়াবাসহ তুরাগে পুলিশের জালে ধরা। «» জিএম কাদেরের ফোন ছিনতাই করে ২৩ হাজার টাকা বিক্রি, বসুন্ধরা মার্কেট থেকে ৮ দিন পর খোলা ফোন উদ্ধার। «» শেরে-বাংলা নগরে প্রশাসনকে মাসোহারা দিয়েই চলছে সরকারি দপ্তরের গাড়ির তেল চুরি «» উত্তরায় কিশোর গ্যাংয়ের ছিনতাইয়ের কবলে পথচারীরা।

আলোচিত নিখোঁজ স্কুল ছাত্রী ডায়না সুন্দরী ২ মাস পর মৌলভীবাজার থেকে উদ্ধার

সেলিম মাহবুবঃ ছাতক উপজেলার জাউয়ার বহুল আলোচিত নিখোঁজ ডায়না বেগম ওরফে ডায়না সুন্দরীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিখোঁজের প্রায় ২ মাস পর শনিবার (৩১ জুলাই) গভীর রাতে মৌলভীবাজার জেলার বড়লেখা এলাকা থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়। গতকাল রোববার বিকেলে আলোচিত ডায়না বেগমকে তার পরিবারের হাতে হস্থান্তর করা হয়। জানা যায়, উপজেলার জাউয়াবাজার ইউনিয়নের মুলতানপুর গ্রামের ফনা উল্লাহর কন্যা ও পাইগাঁও উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেনীর ছাত্রী ডায়না বেগম নিখোঁজ হয় গত ৩০ মে রাতে। ওই রাতে প্রকৃতির ডাকে ঘর থেকে বের হলেও সে আর ঘরে ফিরে আসেনি। এ ঘটনায় ডায়নার মা ফুলতেরা বেগম ৩ জুন ছাতক থানায় একটি জিডি(নং-১১৫) করেন। নিখোঁজের পর থেকেই বিভিন্নভাবে ডায়না বেগম আলোচিত হয়ে উঠে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক ও কয়েকটি অনলাইন পোর্টালে তাকে নিয়ে বিভিন্ন ধরনের প্রচার করা হয়। ডায়না বেগম হয়ে উঠে ডায়না সুন্দরী। ছাতক থানার জিডির প্রেক্ষিতে শনিবার রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জাউয়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এসআই এহতেশাম বড়লেখা থানা পুলিশের সহায়তায় বড়লেখা উপজেলার শাহবাজপুর ইউনিয়নের ঘরুয়া গ্রামের সৌদি প্রবাসী আব্দুল জলিলের বাড়ি থেকে ডায়না বেগমকে উদ্ধার ছাতক থানায় নিয়ে আসা হয়। এ ব্যাপারে ডায়না বেগম পুলিশকে জানায়, মোবাইলের ফোনের মাধ্যমে ঘরুয়া গ্রামের বাসিন্দা সৌদি প্রবাসী আব্দুল জলিলের সাথে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। প্রেমের সুত্র ধরেই ৩০ মে রাতে পালিয়ে সে স্বেচ্ছায় প্রবাসী আব্দুল জলিলের বাড়িতে আশ্রয় নেয়। এসময় আব্দুল জলিল সৌদিতেই অবস্থান করছিল। নিজের ভুল বুজতে পেরে স্বেচ্ছাই সে প্রেমিকের ঘর ছেড়ে পুলিশের সাথে চলে আসে। কারো উপর তার কোন অভিযোগও নেই বলে সে পুলিশকে জানিয়েছে। ছাতক থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ নাজিম উদ্দিন জানান, এ ঘটনায় ভিকটিম ও তার পরিবারের কোন অভিযোগ না থাকায় মেয়েটিকে তার পরিবারের কাছে তুলে দেয়া হয়েছে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ