,


শিরোনাম:
«» মহানন্দা নদীতে যূবকের রহস্যজনক মৃত্যু হস্তক্ষেপ নেই দায়িত্বশীলদের «» জেলা পুলিশ চাঁপাইনবাবগঞ্জ’র মাস্টার প্যারেড সম্পন্ন «» দখিনের দুয়ার উম্মোচনে ফরিদগঞ্জে আনন্দ র‍্যালী «» আব্দুল্লাহপুরে এনা পরিবহনের বাস চাপায় মৃত্যু পথযাত্রী নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাআ’দ। «» শিবগঞ্জে অস্ত্র ও ককটেল সহ ১৩ মামলার আসামি গ্রেপ্তারে র‍্যাব «» চাঁপাইনবাবগঞ্জে পুলিশ-ম্যাজিস্ট্রেসি কনফারেন্স সম্পন্ন «» ফরিদগঞ্জে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ,অভিযুক্ত যুবক আটক «» মুহাম্মদ স: কে নিয়ে বিজেপি নেতাদের কটুক্তির প্রতিবাদে তুরাগ ও উত্তরায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশে অনুষ্ঠিত। «» দুই সন্তান নাজমুল ও সুপারেশ কর্তৃক বৃদ্ধা মা লাঞ্ছিত” থানায় অভিযোগ «» রাজধানীর তুরাগে ডোবা থেকে অজ্ঞাত তরুণীর মৃতদেহ উদ্ধার

পেটে ইয়াবার পুটলাঃইয়াবা পাচারকারী আটক

নুরুল আলম,টেকনাফঃকক্সবাজার টেকনাফের উপকূলীয় অঞ্চলের বাহারছড়া হোয়াইক্যং ঢালারমুখ থেকে আসার পথে পেটে করে ইয়াবা পাচারের সময় একজন মাদক পঁচার কারীকে আটক করে বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রের পুলিশ।পরবর্তীতে হাসপাতালে এক্স-রে পরিক্ষা করলে মিলে ছোট ছোট ট্যাপে মুড়ানো বেশ কয়েকটি ইয়াবার ফুটলা। সুত্র বিষয়টি জানা যায়, আজ পবিত্র জুমাবার ১১ জু জানাব ১০ জুন সাড়ে ৬ টারদিকে হোয়াইক্যং ঢালা হয়ে সিএনজিযোগে পাচারের সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রের দায়িত্ব প্রাপ্ত নুর মোহাম্মদের নেতৃত্বে এসআই শফিউল আলম ও এএসআই জামাল মীরসহ সঙ্গীয় দল নিয়ে বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে হোয়াইক্যাং লম্বাবিল ৩নং ওয়ার্ড এলাকায় নুর হোসেনের ছেলে সাইফুল ইসলাম (২২) কে সন্দেহজনক আটক করার পর ইয়াবার বিষয় অস্বীকার করলে ও পরবর্তীতে উপজেলা কেয়ার ল্যাবে এক্স-রে পরীক্ষা করলে পেটে ধরা পড়ে ৫০ টি করে ১৫টি পুটলা।পেটে আরো বেশ কয়েকটি ইয়াবার পুটলা আছে বলে আটক ব্যক্তি স্বীকার করে। কলা, পাউরুটি এভোল্যাক শিরাপ পান করার দীর্ঘ ছয় ঘন্টা পর বমি করে ১৪টি ও পায়খানার রাস্তা থেকে আরো বেশ কয়েকটি ইয়াবার পুটলা বের হয়। রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ১৫টি ছোট ছোট ইয়াবার পুটলা উদ্ধার করা হয়েছে এবং অবশিষ্ট ইয়াবা বের করার চেষ্টা চলছে। পুলিশ ফাঁড়ী পরিদর্শক নুর মোহাম্মদ জানান, আটককৃত মাদক কারবারীর চাচাতো ভাই সিএনজি চালক নুর আহমদের সিএনজি করে হ্নীলা খালিখালী থেকে পেটে করে কক্সবাজারের দিকে ইয়াবা পাচারের গোপন তথ্যের সংবাদ ভিত্তিতে আটক করা হয় ও কথ রূপ ধারণ করে বিভিন্ন কুশল বিনিময় ইয়াবা ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে ও আগামী দিনে তার ছেলে সন্তান এই বেহাল দশা অবস্থান নেবে পড়া লেখা পড়াশোনা করবপ না রেখেই এই মাদকের স্মৃতি মাঝে মাঝে যাবে বন্দী কারাগারে অপরাধীরা এবং শেষ পর্যন্ত কেয়ার ল্যাবে এক্স-রে করলে রিপোর্টে ধরা পড়লে ও এসব ইয়াবা উদ্ধার করে তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনগত পদক্ষেপ গ্রহণ চলমান রয়েছে বলে জানান ও এই ধরনের অপরাধী নারী পুরুষ আরও অধরা ইনশাআল্লাহ সর্বশেষ যে কোনো মুহূর্তে কুশল বিনিময়ের আটক করার জন্য অপেক্ষা ও অভিযান অব্যাহত থাকবে এবং জনগণের সহযোগিতা কামনা করেন পুলিশ।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ