,


শিরোনাম:
«» ক্ষতিগ্রস্ত ৩৩ দোকান মালিকরা পেলেন প্রধানমন্ত্রীর অনুদান «» যৌতুক না পেয়ে নির্যাতনের অভিযোগ, গৃহবধূকে মারধর «» তুরাগে ১৫০টি দোকানের বিদ্যুৎ বিল মাসে ৭০০ টাকা দেখিয়ে প্রায় ৫ লক্ষ টাকা আত্মসাৎকারী নামধারী নেতা গ্রেফতার। «» তুরাগে আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের নতুন সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রম শুরু «» তুরাগে ২ বছরের শিশু ধর্ষণ : ধর্ষক মামুন আটক। «» ইদ-ই-মিলাদুন্নবি উপলক্ষে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের নিয়ে দোয়া ও আলোচনা সভার আয়োজন করেছে স্বপ্নালোড়ন বাংলাদেশ «» কক্সবাজার টেকনাফের এডভোকেট আব্দুর রহমান ইয়াবাসহ তুরাগে পুলিশের জালে ধরা। «» জিএম কাদেরের ফোন ছিনতাই করে ২৩ হাজার টাকা বিক্রি, বসুন্ধরা মার্কেট থেকে ৮ দিন পর খোলা ফোন উদ্ধার। «» শেরে-বাংলা নগরে প্রশাসনকে মাসোহারা দিয়েই চলছে সরকারি দপ্তরের গাড়ির তেল চুরি «» উত্তরায় কিশোর গ্যাংয়ের ছিনতাইয়ের কবলে পথচারীরা।

রাজশাহী বিভাগের শ্রেষ্ঠ পাবনার পুলিশ সুপার

ঈশ্বরদী প্রতিনিধিঃরাজশাহী রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ পুলিশ সুপার নির্বাচিত হয়েছেন পাবনার এসপি মহিবুল ইসলাম খান বিপিএম। বৃহস্পতিবার (১০ জুন) বিকেলে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ডিআইজি আব্দুল বাতেন বিপিএম মোহাম্মদ মহিবুল ইসলাম খানকে শ্রেষ্ঠ পুলিশ সুপার হিসেবে নির্বাচিত করেন। জানা গেছে, বিভিন্ন অপরাধমূলক কাজের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স, মানুষের পাশে থেকে মানবিকতার পরিচয়, সাধারণ মানুষের আস্থার প্রতীক, মাদক উদ্ধার, বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ মামলার রহস্য দ্রুত উদঘাটন, মাসিক সভা, ওয়ারেন্ট তামিল, সুষ্ঠু ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা, অপরাধ নিয়ন্ত্রণ, দক্ষতা, মানবিকতা ও আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সন্তোষজনক রাখা, মামলা নিষ্পত্তি, মাদক ও অস্ত্র উদ্ধার, নারী ও শিশু হেল্প ডেস্কে সাড়া প্রদানসহ জানুয়ারি-মার্চ মাসের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি ও সার্বিক কার্যক্রম বিবেচনায় তাকে রাজশাহী রেঞ্জের শ্রেষ্ঠ পুলিশ সুপার হিসেবে নির্বাচিত করা হয়। এ সময় শ্রেষ্ঠ সার্কেল পাবনা সদর থানার মো. রোকনুজ্জামান সরকার, সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাছিম আহম্মেদ শ্রেষ্ঠ ওসি, শ্রেষ্ঠ পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত মো. রওশন আলী (পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত), সদর থানা (বর্তমানে অফিসার ইনচার্জ আমিনপুর থানা), শ্রেষ্ঠ এএসআই মো. মাসুদ রানা সদর ফাঁড়ি ঘোষণা করা হয়। অনুষ্ঠিত ভিডিও কনফারেন্সে রাজশাহী রেঞ্জ ডিআইজি আব্দুল বাতেন (বিপিএম) সকল ইউনিটের আইন-শৃঙ্খলা ও সার্বিক পরিস্থিতি মূল্যায়ন করেন এবং বিভিন্ন বিষয়ে দিক-নির্দেশনামূলক বক্তব্য দেন। পাবনার এসপি মহিবুল ইসলাম খান বলেন, জেলা পুলিশের এ অর্জনের অংশীদার পুলিশের সব অফিসার ও ফোর্স যারা দিনরাত জনগণের নিরাপত্তায় নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন, পাশাপাশি পাবনার জনগণও অর্জনের বড় অংশীদার। আপনাদের দেওয়া বিভিন্ন তথ্য নিয়ে যোগদানের পর থেকে আমি জেলার আইন-শৃঙ্খলার উন্নয়নে চেষ্টা করছি। ভবিষ্যতেও আপনাদের সহযোগিতা একান্ত কাম্য। উল্লেখ্য, মো. মহিবুল ইসলাম খান ২০২০ সালের ৯ ডিসেম্বর পুলিশ সুপার হিসেবে পাবনায় যোগদান করেন। যোগদানের পরই পাবনায় একটি নিরপেক্ষ নির্বাচন উপহার দেওয়ায় জেলাবাসীর কাছে ব্যাপক প্রশংসিত হন। জেলার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের পাশাপাশি করোনা মহামারিতে কর্মহীন মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ