,


শিরোনাম:
«» ক্ষতিগ্রস্ত ৩৩ দোকান মালিকরা পেলেন প্রধানমন্ত্রীর অনুদান «» যৌতুক না পেয়ে নির্যাতনের অভিযোগ, গৃহবধূকে মারধর «» তুরাগে ১৫০টি দোকানের বিদ্যুৎ বিল মাসে ৭০০ টাকা দেখিয়ে প্রায় ৫ লক্ষ টাকা আত্মসাৎকারী নামধারী নেতা গ্রেফতার। «» তুরাগে আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের নতুন সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রম শুরু «» তুরাগে ২ বছরের শিশু ধর্ষণ : ধর্ষক মামুন আটক। «» ইদ-ই-মিলাদুন্নবি উপলক্ষে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের নিয়ে দোয়া ও আলোচনা সভার আয়োজন করেছে স্বপ্নালোড়ন বাংলাদেশ «» কক্সবাজার টেকনাফের এডভোকেট আব্দুর রহমান ইয়াবাসহ তুরাগে পুলিশের জালে ধরা। «» জিএম কাদেরের ফোন ছিনতাই করে ২৩ হাজার টাকা বিক্রি, বসুন্ধরা মার্কেট থেকে ৮ দিন পর খোলা ফোন উদ্ধার। «» শেরে-বাংলা নগরে প্রশাসনকে মাসোহারা দিয়েই চলছে সরকারি দপ্তরের গাড়ির তেল চুরি «» উত্তরায় কিশোর গ্যাংয়ের ছিনতাইয়ের কবলে পথচারীরা।

শরীয়তপুরে ইঞ্জিনিয়ারের বাধা অমান্য করে বৃষ্টির মধ্যে চলছে রাস্তার পিচ ঢালাই

নজরুল ইসলাম,শরীয়তপুরঃশরীয়তপুর সদর উপজেলার পালং ইউনিয়নের নর-বালাখানা এলাকায় বৃষ্টির ভেতর চলছে রাস্তার পিচ ঢালাই কাজ। পালং ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের ফকির বাড়ির ব্রীজ থেকে এতিমখানা বটতলা পর্যন্ত ১ কিলোমিটার রাস্তার কাজ বাধা অমান্য করেই বৃষ্টির ভেতরে চালিয়ে যাচ্ছে বলে হতাশ প্রকাশ করেন ইঞ্জিনিয়ার রেজাউল করিম ৷
অভিযোগের ভিত্তিতে ১জুন বেলা ১টায় সরেজমিনে গিয়ে দেখি-১ কিলোমিটার রাস্তার অনেকাংশে ইটের খোয়ার উপর মাটির প্রলেপ পরে আছে। দেখে মনে হয় মাটির রাস্তা। তার উপর তৈল মারা। তা আবার বৃষ্টিতে ধুয়ে গেছে। ইঞ্জিনিয়ার এর অনুপস্থিতিতে চলছে পিচ ঢালাইয়ের কাজ। জানা যায়, এই কাজের এসও জামাল হোসেন। তিনি মূলত সার্ভেয়ার থেকে এসও’র দায়িত্ব পালন করেন। তাকে রাস্তার পিচ ঢালাইয়ের সময় পাওয়া যায়নি।
রাস্তার কাজের বিষয় এলাকাবাসী বলেন-৩ দিন ধরে বৃষ্টি হচ্ছে। এই বৃষ্টির ভেতর চলছে রাস্তার পিচ ঢালাইয়ের কাজ। কাজ বন্ধ রাখার নির্দেশ দিলেও ঠিকাদার কাজ চালিয়ে যাচ্ছে । এলাকাবাসী অারও বলেন-এই রাস্তাটা বেশিদিন টিকবো না ! সবঐ পচা ইটের খোয়া দিছে রাস্তাটায়,রাস্তাটা ঠিক মত ডলেও নাই,তেল অল্প দিছে,এভাবেই তৈরি করতাছে রাস্তাটা।
ঠিকাদার আমিনুল ইসলাম এর কাছে এলাকাবাসীর অভিযোগ এর কথা বললে তিনি অকথ্য ভাষায় বলেন-কে আমার বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছে। রাস্তার কোথাও কোন সমস্যা থাকলে আপনারা নিউজ করেন।
উল্লখ্য;ইতিমধ্যে ঠিকাদার আমিনুল ইসলাম এর বিরুদ্ধে জেলার বিভিন্ন এলাকায় নিন্মমানের কাজ করার অভিযোগ রয়েছে। এলাকাবাসী ঠিকাদারের নিন্মমানের কাজের বাধা দিয়েও কোন সুফল পায়নি।
এবিষয়ে সদর উপজেলা ইঞ্জিনিয়ার রেজাউল করিম মুঠোফোনে বলেন-বৃষ্টির ভেতর কোন কাজ হবে না। আমি লোক পাঠিয়ে কাজ বন্ধ করে দিয়েছি। এখন জদি কাজ চলে তাহলে বিষয়টি আমি দেখতেছি। এই বলে ফোন কেটে দেন। এদিকে রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কাজ চলছেই।
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ