,


শিরোনাম:
«» তুরাগে গৃহবধু হত্যার অভিযোগে স্বামীর বন্ধু গ্রেফতার «» ভাড়া বাসায় অবস্থান করে স্বর্ণের দোকানে ডাকাতী করতো তারা’ «» ঈশ্বরদীতে ২০০ লিটার মদসহ গ্রেফতার ১ «» ঈশ্বরদীতে নবজাতক হত্যার অভিযোগ সাবেক স্বাস্থ্যকর্মীর আকলিমার বিরুদ্ধে «» সাংবাদিকতার দায় একমাত্র জনসাধারণের কাছে:তিতুমীর «» ঈশ্বরদীতে প্রণোদনার সার-বীজ প্রদানে স্বজনপ্রীতির অভিযোগ প্রকৃত কৃষকদের «» ঈশ্বরদীতে বালু খেকোদের কবলে বিলিন হাজার হেক্টর ফসলি জমি, দিশেহারা কৃষক «» ঠাকুরগাঁওয়ে বিশ্ব মৃত্তিকা দিবস পালিত র‍্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত «» চাঁপাইনবাবগঞ্জ সাবেক এমপি ও জেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদকের বাসভবনে হামলা «» চাঁপাইনবাবগঞ্জ কৃষকলীগের অনুষ্ঠানে সংঘর্ষে যুবলীগ নেতা মিনহাজ আহত

দক্ষিণখানে নির্মাণাধীন ভবন থেকে পড়ে এক রাজমিস্ত্রী নিহতঃঠিকাদার আটক

এস,এম,মনির হোসেন জীবনঃরাজধানীর দক্ষিণখানের চালাবন্দ এলাকায় একটি নির্মাণাধীন বহুতল ভবনে কাজ করার সময় নিচে থেকে পড়ে এক রাজ মিস্ত্রী নিহত হয়েছে। নিহতের নাম বিশ্বনাথ রায় (৩৮)। এঘটনায় ঠিকাদার মো, মিজানুর রহমান ওরফে মিজানকে পুলিশ জিঙাসাবাদের জন্য আটক করেছে। আজ বুধবার দুপুর ১২টার দিকে দক্ষিণখান চালাবন্দ এলাকায় ভাই ভাই মার্কেট রোডে এ দুঘ’টনা ঘটে। ডিএমপি দক্ষিণখান থানার এসআই ও মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা আজহারুল ইসলাম আজ বুধবার এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, নিহত বিশ্বনাথ রায় এর পিতার নাম মনভোলা। তিনি স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে দক্ষিণখানের মিজানের গ্যারেজ রোডে ভাড়া বাসায় বসবাস করতেন। তার গ্রামের বাড়ি লালমনিরহাটের রতিপুরে বলে জানা গেছে। পুলিশ ও এলাকাবাসিরা জানান, আজ বুধবার দুপুর ১২টার দিকে দক্ষিণখান চালাবন্দ এলাকায় ভাই ভাই মার্কেট রোডের ৫ নম্বর গলির ১৩০ নম্বর বাড়ির চার তলার ছাদ থেকে পাশের বাড়ির এক তলার ছাদে পড়ে তার মৃত্যু হয়। মৃতের ছেলে আনন্দ (১৬) ও তার পরিবারের লোকজন জানায়,আমার বাবা একজন রাজ মিস্ত্রী, তিনি গাথুনির কাজ করতেন। তিনি মিজান ঠিকাদারের অধিনে কাজ করতেন, তার শারীরিক সমস্যাও ছিল। নির্মাণাধীন ভবনের মালিক আলমগীর হোসেন জানান, আমি ঠিকাদারকে কাজ দিয়েছি। কাজের সময় সেফটি ব্যবহার করা হয়নি কেন এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি জানান, সেফটি দিতে হয় বিষয়টি আমার জানা ছিল না। ঠিকাদার কেন দিল না?। দিতে হবে আমাকে বল্লেও পারতো। এদিকে, দক্ষিণখান থানার এসআই ও মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা আজহারুল ইসলাম জানান, আমি প্রাথমিকভাবে তদন্ত করছি। কাজের সময় পড়ে গিয়ে বিশ্বনাথের মৃত্যু হয়েছে। সেফটি ছাড়া কাজ করার কারনে পড়ে গিয়ে তার ( শ্রমিকের) মৃত্যু হয়েছে বলে তিনি জানান। তিনি আরও জানান, আমরা ঠিকাদার মো, মিজানুর রহমান ওরফে মিজানকে জিঙাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। মামলা হবে, তবে, আসামীর বিষয়টি তদন্ত শেষে বলা যাবে। ময়নাতদন্তের জন্য নিহতের মরদেহ ঢামেক হাসপাতাল মগে’ পাঠানো হবে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ