,


শিরোনাম:
«» উত্তরায় কিশোর গ্যাংয়ের ছিনতাইয়ের কবলে পথচারীরা। «» আব্দুল্লাহপুরের তালাবদ্ধ গরুর সিকল কেটে থানায় এনে চাঁদা আদায় ক্ষুব্দ গরুর মালিক  «» ‘পড়ি বঙ্গবন্ধুর বই, সোনার মানুষ হই ‘-শীর্ষক সেরা পাঠকদের পুরষ্কার বিতরণী «» মহানন্দা নদীতে যূবকের রহস্যজনক মৃত্যু হস্তক্ষেপ নেই দায়িত্বশীলদের «» জেলা পুলিশ চাঁপাইনবাবগঞ্জ’র মাস্টার প্যারেড সম্পন্ন «» দখিনের দুয়ার উম্মোচনে ফরিদগঞ্জে আনন্দ র‍্যালী «» আব্দুল্লাহপুরে এনা পরিবহনের বাস চাপায় মৃত্যু পথযাত্রী নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাআ’দ। «» শিবগঞ্জে অস্ত্র ও ককটেল সহ ১৩ মামলার আসামি গ্রেপ্তারে র‍্যাব «» চাঁপাইনবাবগঞ্জে পুলিশ-ম্যাজিস্ট্রেসি কনফারেন্স সম্পন্ন «» ফরিদগঞ্জে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ,অভিযুক্ত যুবক আটক

চলচ্চিত্রকার আলমগীর’র মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে জোটের শ্রদ্ধা নিবেদন ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

 সেলিম মাহবুব,ছাতকঃ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাবেক সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি, প্রয়াত আলমগীর কুমকুমের ৯ম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে শনিবার সকালে বনানী কবরস্থানে পুস্পমাল্য অর্পণ, আলোচনা সভা, মিলাদ মাহফিল, তবারক বিতরণ ও মানবভোজের আয়োজন করে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট কেন্দ্রীয় কমিটি। বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের সিনিয়র সহ সভাপতি স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের কন্ঠশিল্পী রফিকুল আলমের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় অংশগ্রহণ করেন সংগঠনের সহ সভাপতি শেখ মো. জাহাঙ্গীর আলম, চিত্রনায়ক সাকিল খান, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক ও মুখপাত্র অরুন সরকার রানা, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রয়াত আলমগীর কুমকুমের ছেলে রনি কুমকুম, সাংবাদিক সুজন হালদার, জয়দেব রায়, কন্ঠশিল্পী করিম খান, আদিত্য রতন সরকার, মো. শিবলী, নূর মোহাম্মদ, মো. মায়া, মো. অপুসহ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন। এফডিসিতে সংগঠনের কার্যকরী সভাপতি, জোটের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা চিত্রনায়ক আলমগীরের উদ্যোগে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল, মানবভোজে ২৫০প্যাকেট বিরানি বিতরণ করা হয়। বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের কেন্দ্রীয় কার্যকারী সভাপতি জোটের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা চিত্রনায়ক আলমগীর, সাধারণ সম্পাদক অরুন সরকার রানা চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার সহ সহ চলচ্চিত্র অঙ্গণের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গরা উক্ত কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করেন। আলোচনা সভায় বক্তারা বলেছেন, আলমগীর কুমকুম জাতির দুঃসময়ে, দুর্দিনে বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে বাস্তবায়ন করার জন্য আন্দোলন-সংগ্রাম করে গেছেন। আলমগীর কুমকুম ছিলেন বঙ্গবন্ধুর আদর্শের এবং আওয়ামী লীগের প্রকৃত সৈনিক। তিনি কোন লোভ-লালসার কাছে বিক্রি হননি। আলমগীর কুমকুমের অবদান জাতি কখনো শোধ করতে পারবে না। ছাত্র রাজনীতি থেকে সাংস্কৃতিক অঙ্গণ ও রাজনৈতিক অঙ্গণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন। বক্তারা আলমগীর কুমকুমকে স্বাধীনতা পদক ও একুশে পদক প্রদানের জন্য সরকারের প্রতি জোর দাবী জানান। বক্তারা বলেন, সুসময়ে অনেকেই আছেন দুঃসময়ে তাদের খুঁজেও পাওয়া যায়নি। ত্যাগী নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন হওয়া দরকার। আলমগীর কুমকুম দেশের বুদ্ধিজীবী, শিল্পী, সাহিত্যিক, সংস্কৃতিকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ করে বঙ্গবন্ধুর হত্যার বিচার, জাতীয় চারনেতা হত্যার বিচার, যুদ্ধাপরাধীদের বিচার, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা, জনগণের ভোট ও ভাতের অধিকার প্রতিষ্ঠায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন। তিনি ছিলেন জননেত্রী শেখ হাসিনার আদর্শের প্রকৃত কর্মী। তিনি ভোগে বিশ্বাসী ছিলেন না। তিনি ছিলেন ত্যাগে বিশ্বাসী। তাছাড়াও বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট, সিলেট জেলা শাখা, চট্টগ্রাম জেলা শাখা, চাঁদপুর জেলা শাখা, খুলনা জেলা শাখা, ময়মনসিংহ জেলা শাখা, সিরাজদিখান শাখাসহ বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের বিভিন্ন শাখা আলমগীর কুমকুমের ৯ম মৃত্যুবার্ষিকী পালন করেছে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ