,


শিরোনাম:
«» কক্সবাজার টেকনাফের এডভোকেট আব্দুর রহমান ইয়াবাসহ তুরাগে পুলিশের জালে ধরা। «» জিএম কাদেরের ফোন ছিনতাই করে ২৩ হাজার টাকা বিক্রি, বসুন্ধরা মার্কেট থেকে ৮ দিন পর খোলা ফোন উদ্ধার। «» শেরে-বাংলা নগরে প্রশাসনকে মাসোহারা দিয়েই চলছে সরকারি দপ্তরের গাড়ির তেল চুরি «» উত্তরায় কিশোর গ্যাংয়ের ছিনতাইয়ের কবলে পথচারীরা। «» আব্দুল্লাহপুরের তালাবদ্ধ গরুর সিকল কেটে থানায় এনে চাঁদা আদায় ক্ষুব্দ গরুর মালিক  «» ‘পড়ি বঙ্গবন্ধুর বই, সোনার মানুষ হই ‘-শীর্ষক সেরা পাঠকদের পুরষ্কার বিতরণী «» মহানন্দা নদীতে যূবকের রহস্যজনক মৃত্যু হস্তক্ষেপ নেই দায়িত্বশীলদের «» জেলা পুলিশ চাঁপাইনবাবগঞ্জ’র মাস্টার প্যারেড সম্পন্ন «» দখিনের দুয়ার উম্মোচনে ফরিদগঞ্জে আনন্দ র‍্যালী «» আব্দুল্লাহপুরে এনা পরিবহনের বাস চাপায় মৃত্যু পথযাত্রী নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাআ’দ।

জয়পুরহাটের পাঁচবিবি শাক তুলতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার ১ তরুনী

জুয়েল শেখ:  জয়পুরহাটের পাঁচবিবি বিল থেকে শাক তুলে বাড়ির ফেরার পথে উপজেলা ধরঞ্জী ইউনিয়নের সালুয়া গ্রামের একটি ফাঁকা মাঠে ধর্ষণের শিকার হয়েছে ১৯ বছরের এক হিন্দু ধর্মাবলম্বী ১ তরুনী। ধর্ষণের শিকার ওই তরুনীর বাড়ি উপজেলার উঁচনা গ্রামে এঘটনায় তিন জনকে আসামী করে ধর্ষণের শিকার ওই তরুনী বাদি হয়ে শুক্রবার দুপুরে পাঁচবিবি থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। পাঁচবিবি থানায় মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত ৬ জানুয়ারী বুধবার বিকালে ধরঞ্জী ইউনিয়নে সালুয়ার বিল থেকে শাক তুলে মাঠ দিয়ে বাড়ি ফিরছিলো ওই তরুনী। এসময় উঁচনা গ্রামের আয়েজ উদ্দীনের ছেলে আব্দুর রাজ্জাক ২১ ফজলুর রহমানের ছেলে হাবিব ২৬ ও জাহান আলীর ছেলে মোনোয়ার হোসেন ১৯ সেখানে চলে আসে। তরুনীকে একা পেয়ে আব্দুর রাজ্জাক ও হাবিব ওই তরুনীকে পাশের আলু ক্ষেতে নিয়ে গিয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। এসময় ওই তরুনী চিৎকার করে। মোনোয়ার কে বলে তাকে ধর্ষণ না করার জন্য তবুও না শোনে ওই তরুনী কে ধর্ষণ করে তাঁরা পালিয়ে যায়। পরে আহত অবস্থায় বাড়িতে গিয়ে বিষয়টি জানালে পরিবারের লোকজন শুক্রবার দুপুরে থানায় এসে মামলা দায়ের করেন। পাঁচবিবি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি পলাশ চন্দ্র দেব বলেন, এঘটনায় থানায় ধর্ষণের মামলা হয়েছে আসামীদের গ্রেফতারের তৎপরতা চলছে সাংবাদিক আল কারিয়া চৌধুরী উপজেলা প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এস এম শামীম আহমেদ সহ অন্যান্য সাংবাদিক বৃন্দ দেরকে এ কথা জানান।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ